Friday, October 7, 2022
HomeUncategorized মাড় প্রকরণের প্রাথমিক উদ্দেশ্য

 মাড় প্রকরণের প্রাথমিক উদ্দেশ্য

 

                   মাড় প্রকরণের প্রাথমিক উদ্দেশ্য

মাড় প্রকরণের প্রাথমিক উদ্দেশ্য হলো টানার ন্যূনতম ক্ষতিসাধন না করে কাপড় বয়ন করা। কোন কোন ক্ষেত্রে মাড় ও ব্যবহার করা হয় সুতার বৈশিষ্ট্যের পরিবর্তন আনার জন্য, যাতে কাপড়ের দৃঢ়তা ও ওজনের ওপর প্রভাব ফেলে। কিন্তু এই দুইটি ব্যবহারের ফলে প্রথমটির ওপর হস্তক্ষেপ করলে প্রক্রিয়ার ওপর প্রয়োগ করা হবে। রানা প্রকরণের প্রাথমিক উদ্দেশ্য সাধিত হয় সুতার মধ্যকার আর সমূহ পারস্পরিক লেগে থেকে এর শক্তি ও ক্ষমতা বৃদ্ধি এবং উত্তম এর মাধ্যমে। এটি গুরুত্বপূর্ণ যে সাইজিং উপকরণসমূহ যাতে বায়ন পরবর্তী পর্যায়ে কোনরূপ বিরূপ প্রভাব না ফেলে বরং যেখানে সম্ভব হয় সাঈদীকে সমস্ত প্রক্রিয়ার সাহায্যে করবে। সুতম লিভিং এর প্রভাব এবং কিভাবে কিভাবে মাড় ব্যবহার করা হল শুধুমাত্র তা বিবেচনায় আনা প্রয়োজন এবং পরবর্তী প্রক্রিয়ায় কাপড়ের প্রভাব বিবেচনায় আনতে হবে। সাইজিং ব্যয় সাপেক্ষ হওয়া সত্বেও সুতায় মাড় দেওয়া হয়, কেননা এটি লিভিং এ দক্ষতা বৃদ্ধি করে বিশেষ করে তা নয় অতিরিক্ত শক্তি প্রদান করে যা ওয়েভিং দক্ষতায় পৌঁছানোর জন্য মাড়বহিন সুতার পর্যাপ্ত নয়। প্রায় সকল উইপিং কারখানায় সুতায় মাড় প্রদান করা হয় এমনকি কি প্রেমের সুতা যাতে পর্যাপ্ত শক্তি বিদ্যমান তাতেও প্রয়োগ করা হয়। কেননা বায়নের সময় মাড় বিহীন সমস্ত সুতায় আঁশ উঠে যায়। সুতা ঢিলা হয় বাল ছিঁড়া ফিলামেন্ট বহিষ্কার হয়। বিশেষ করে যে সমস্ত কৃত্রিম ফিলামেন্ট textured সুতা ও কমপাকের সুতায় পরিলক্ষিত হয়। এসমস্ত বৈশিত পেজ বেঁধে বা fuzz ball সৃষ্টি করে সুতা ছিড়ে যায়। সাধারণত যে সমস্ত সুতায় উচ্চসীমা পর্যায়ে পাক থাকে তাতে মাড়ের পরিমাণ কম লাগে। পাক ব্যতিক্রমী উদ্যোগ হলে এর দ্বারা মাড় ব্যতীত বুনন সম্ভব কিন্তু কাপড় খসখসে শক্ত হবে অধিকাংশ উদ্দেশ্য সাধনে গ্রহণযোগ্য হবে না। মাড়বিহীন সুতা ফিস্টিং করে গ্রহণযোগ্য কাপড় তৈরি করা সম্ভব কিন্তু এতে আর্থিক লাভ নেই কেননা টুইস্টিং করতেও সার্চিং এর চেয়ে সময় খরচ বেশি পড়বে। প্রায় সময় তোয়ালে তৈরি করতে ply সুতায় সাধারণত চাহিদা অনুযায়ী মার ব্যবহার করা হয়।

ভবিষ্যতের দিকে তাকালে দেখা যায় নতুন নতুন বাজারে আসবে। এ মস্যার নতুন সুতার গঠনের প্রয়োজনীয়তা পরিবর্তন করতে পারে। এরূপ twistless সুতা যেখানে ফাইবার সমূহ আঠালো পদার্থ দ্বারা একত্র করে সুতা দিয়ে শায়িত করা হয় এতে সামান্য মাড় বা পুনরায় sizing করার প্রয়োজন নেই। যদি এমন হয় যে মাড়ে বিদ্যামান পানি সুতার আঠালো পদার্থের সংস্পর্শে এসে দ্রবীভূত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। ফলে সুতার ক্ষতি সাধন হবে।composite সুতায় (যেখানে ফাইবার সমূহ ঘর্ষণজনিত বালা সৈনিক বলে সাহায্যে এবং যেখানে স্থাপন ও ফিলামেন্ট উভায় component এমনকি অন্যান্য polymeric পদার্থ ব্যবহার করে পরিবারগুলোকে একত্রে সহবস্থানে রেখে সুতা করা হয়)

বর্তমানে প্রচলিত প্রক্রিয়া চেয়ে ভিন্নতর বিশেষ প্রক্রিয়ার প্রয়োজন।open -end spun সুতায় synthetic starch মিশ্রিত মাড় দ্রবণ প্রয়োজন। অধিকিন্তু যন্ত্রপাতির আধুনিকায়ন হয়ে অনেক পরিবর্তন সাধিত হয়েছে। আধুনিক মাকু বিহীন তাতে টানা সুতায় প্রয়োগগত পরিবর্তন এসেছে। উদাহরণস্বরূপ water -jet তাতে পড়েন সুতা প্রবেশের পদ্ধতিগত কারণে টানা সুতায় পানিতে দ্রবণীয় মাড় ব্যবহার করলে সাধারণত সাইজিং সমস্যা সৃষ্টি হয়।

 

মাড় প্রকরণ এর উদ্দেশ্য:
১। সুতার ওপর protective adhesive coating দেওয়ার ফলে সুতার projecting fibre গুলো সুতার গাঁয়ে দৃঢ়ভাবে লেগে যায় ফলে সুতার শক্তি বৃদ্ধি পায়।
২। সাইজিং করার ফলে উইভিং এর সময় সুতা মেইল সানা ও ফিল্ড ওয়ার্ক এর ঘর্ষণজনিত আঘাত থেকে রক্ষা পায় তাছাড়া একটি সুতার সাথে আরেকটি ঘর্ষণ প্রতিরোধ হয়।
৩। সাইজিং করার ফলে সুতার ব্যাস বৃদ্ধি সহ সুতার অসমতা হ্রাস পায়
৪। সাইট্রিক কোন ফলে সুতার ওজন বৃদ্ধি পায়
৫। নিম্নমানের সূতাকে সাইজিং করলে এর মান উন্নয়ন হয়।
৬। পলিস্টার ব্ল্যাক চোদায় যে স্থির বিদ্যুৎ উৎপন্ন হয় তা হ্রাস পায়
৭। সুতা কোমল মসৃণ ও উজ্জ্বল হয় সর্বোপরি উইভিং এর দক্ষতা বৃদ্ধি পায়

আরও পড়ুনঃরিড কাউন্ট ও হিল্ড কাউন্ট

 

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments